পূর্ববর্তী লেখা    পরবর্তী লেখা
পুরো লিস্ট দেখুন

এন্টিবায়োটিকে বাড়তে পারে সংক্রমণের ঝুঁকি

ব্যাকটেরিয়া সংক্রমণ প্রতিরোধের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ওষুধ এন্টিবায়োটিক। কিন্তু এ ওষুধটিই যদি সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়িয়ে দেয় তাহলে চিন্তিত না হয়ে উপায় আছে? সম্প্রতি গবেষকরা এমন উদ্বেগজনক তথ্যই জানাচ্ছেন। এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে এনডিটিভি।

এন্টিবায়োটিক ব্যাকটেরিয়াজনিত সংক্রমণ প্রতিরোধে চিকিৎসকদের সবচেয়ে শক্তিশালী হাতিয়ার। কিন্তু এন্টিবায়োটিক গ্রহণের পরবর্তী সময়ে তা ব্যাকটেরিয়া সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়িয়ে দেয়। এতে পরবর্তীকালে ঘন ঘন ওষুধটি গ্রহণের প্রয়োজনীয়তা দেখা দেয়।

গবেষকরা জানাচ্ছেন, এন্টিবায়োটিকের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার মধ্যে এটি অত্যন্ত ক্ষতিকর বিষয়। এ ক্ষতিকর বিষয়টি কিভাবে দূর করা যায়, তা গুরুত্বের সঙ্গে গবেষণা করা উচিত।

সম্প্রতি এন্টিবায়োটিকের এ ক্ষতিকর বিষয়টি অনুসন্ধান করা হয়েছে ইঁদুরের ওপরে গবেষণায়। এতে গবেষকরা দেখেন এন্টিবায়োটিক প্রয়োগের পর একসারি কার্যক্রম চলে, যা পেটের ভেতর ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়া বৃদ্ধির কারণ হয়। এ কার্যক্রমের প্রথম ধাপে অ্যান্টিবায়োটিক পেটের ‘ভালো’ ব্যাকটেরিয়ার সংখ্যা কমিয়ে দেয়। এক্ষেত্রে ফাইবার ভাংতে কার্যকর ব্যাকটেরিয়াগুলোও কমে যায় এবং বিপাক ক্রিয়ায় ব্যাঘাত ঘটে।

এ বিষয়ে গবেষকদের প্রধান অ্যান্ড্রু বাউমলার। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়ার ডেভিস হেলথ সিস্টেমস-এ কর্মরত। তিনি বলেন, এ প্রক্রিয়ায় দেহের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অর্গানিক এসিড বুটিরেট উৎপাদন হ্রাস পায়। পেটের হজমশক্তির এ পরিবর্তনের কারণে আঁশজাতীয় খাবার বিপাক ক্রিয়ায় সমস্যা তৈরি হয়।

কিন্তু এন্টিবায়োটিক কিভাবে রোগের শক্তিকে বাড়িয়ে দেয়? এ বিষয়ে গবেষকরা জানান, এন্টিবায়োটিক এ কাজ করে অক্সিজেন মাত্রা কমিয়ে দিয়ে ও পেটের ফাইবার প্রসেসিং-এ পরিবর্তন করে। তবে ঠিক কিভাবে এ প্রক্রিয়া কাজ করে তা এখনও জানাতে পারেননি গবেষকরা। এ পর্যন্ত গবেষণায় প্রাপ্ত তথ্য তারা প্রকাশ করেছেন সেল হোস্ট মাইক্রোব জার্নালে।

গবেষণার মূল বিষয়টিকে গবেষক বাউমলার ব্যাখ্যা করেছেন এভাবে, ‘এন্টিবায়োটিক গ্রহণের পর পেটের বিভিন্ন ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়া সহজেই অক্সিজেন নিতে পারে এবং এতে তাদের কারো কারো মাত্রা উদ্বেগজনকভাবে বেড়ে যায়।’

এন্টিবায়োটিকের প্রভাবে পেটে এ বিশেষ পরিস্থিতি তৈরি হওয়ায় স্যালমোনেলা নামে একটি ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণ হতে পারে। এটি পরবর্তীতে ডায়রিয়া, জ্বর ও অস্বাভাবিক পরিস্থিতি তৈরি করতে পারে। মূলত ১২ থেকে ৭২ ঘণ্টা পর এ প্রক্রিয়াটি হতে পারে বলে জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের সেন্টারর্স ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন।

 
আরো পড়ুন
 

নামসংক্ষিপ্ত বিবরণ
আপনার মুখে দুর্গন্ধ? লবঙ্গ দিয়ে মাত্র ১০ মিনিটে দূর করুন মুখের দুর্গন্ধজেনে নিন কিভাবে কিভাবে দূর করবেন আপনার মুখে দুর্গন্ধ
৩ টাকা দিয়ে ফলটি কিনুন !! এই একটি ফলের রসেই গলবে কিডনির পাথর।বিস্তারিত ভিতরে পড়ুন
ক্যানসার-তেজস্ক্রিয়তাও প্রতিরোধ করে সাদা তিল! রয়েছে আরও বহু উপকারিতাবিস্তারিত পড়ুন ক্যানসার-তেজস্ক্রিয়তাও প্রতিরোধ করে সাদা তিল! রয়েছে আরও বহু উপকারিতা
যে কারণে ক্রুসিফেরি পরিবারের সবজি খাওয়া ভালোবিস্তারিত পড়ুন যে কারণে ক্রুসিফেরি পরিবারের সবজি খাওয়া ভালো
খাওয়ার পর একটু হাঁটার সুফলবিস্তারিত পড়ুন খাওয়ার পর একটু হাঁটার সুফল
পর্যাপ্ত ফল ও সবজি না খেলে যা হয়বিস্তারিত পড়ুন পর্যাপ্ত ফল ও সবজি না খেলে যা হয়
যে সকল সুস্বাদু খাবার আপনার শরীরের মেদবৃদ্ধি করবে নাবিস্তারিত পড়ুন যে সকল সুস্বাদু খাবার আপনার শরীরের মেদবৃদ্ধি করবে না
এবার চিরকালের জন্য কোমরের ব্যথা দূর করার জাদুকরি উপায় জেনে রাখুনবিস্তারিত পড়ুন এবার চিরকালের জন্য কোমরের ব্যথা দূর করার জাদুকরি উপায় জেনে রাখুন
জিরা খেয়ে ১৫ দিনে মেদচর্বি একদম ঝরিয়ে ফেলুনজিরা খেয়ে ১৫ দিনে মেদচর্বি একদম ঝরিয়ে ফেলুন! জেনে নিন কখন, কি ভাবে খাবেন?
শিশুদেরকে বাহু ধরে ঘোরানো ঠিক নয়বিস্তারিত পড়ুন শিশুদেরকে বাহু ধরে ঘোরানো ঠিক নয়
আরও ১২৭৯ টি লেখা দেখতে ক্লিক করুন
২৫ বছরে ১৮ সন্তানের জননী!
সর্বপ্রথম পোর্টেবল দ্বীপ
বিদেশিনীর বাংলা প্রেম
জুতার গাছ!
exam
নির্বাচিত প্রতিবেদন
exam
সুমাইয়া শিমু
পিয়া বিপাশা
প্রিয়াংকা অগ্নিলা ইকবাল
রোবেনা রেজা জুঁই
বাংলা ফন্ট না দেখা গেলে মোবাইলে দেখতে চাইলে
how-to-lose-your-belly-fat
guide-to-lose-weight
hair-loss-and-treatment
how-to-flatten-stomach
fat-burning-foods-and-workouts
fat-burning-foods-and-workouts
 
সেলিব্রেটি