পূর্ববর্তী লেখা    পরবর্তী লেখা
পুরো লিস্ট দেখুন

নাসির হোটেল

পুরান ঢাকা বাসীর কাছে যে কয়েকটা খাবার অতি প্রিয় তার মধ্যে নানরুটি আর নেহারি অন্যতম। কলতাবাজার নাসির উদ্দিন সরদার লেনে অবস্থিত নাসির হোটেলের প্রধান আকর্ষণ  নানরুটি ও নেহারি। এ খাবারের স্বাদ গ্রহন করতে প্রতিদিন খুব ভোরে মানুষ ভিড় করে নাসির হোটেলে। ঢাকায় যারা আদি-পুরুষ থেকে বসবাস করে আসছে, তাদের সকালের নাস্তায় থাকে নানরুটির সাথে নেহারি। অনেকে আবার নেহারির সাথে পরোটা খেতে পছন্দ করেন। নেহারি খাবারটি তৈরী করতে প্রধান উপকরণ হিসেবে ব্যবহার করা হয় গরুর পায়ের হাড়।

 

নেহারি তৈরীর পদ্ধতিটা একটু জটিল হলেও এ খাবার তৈরীর ক্ষেত্রে অন্য সব হোটেলের চেয়ে এগিয়ে আছে নাসির হোটেল। নাসির হোটেলের কর্মকর্তারা প্রতিদিন বাজারের সেরা গরুর পা কিনে আনেন এ খাবার তৈরির উপকরণ হিসেবে। একটা পায়ের হাড়কে করা হয় আট খন্ড। তারপর পাউরুটি পানিতে চটকিয়ে মসলা ও পানি মিশিয়ে হাড্ডি জ্বাল দেওয়া হয় সারা রাত। সকালে সেটাই পরিনত হয় নেহারিতে। ধোলাইখালের পার হয়ে কলতাবাজার নাসির উদ্দিন সরদার লেনে প্রবেশ করলেই চোখে পড়বে সাদামাটা হোটেলটি। সকাল ৬টা থেকেই নেহারি নামক প্রিয় খাবারটি প্রস্তুত থাকে সাধারণ ক্রেতাদের জন্য। সকাল ৬টা থেকে সাড়ে ৭টার মধ্যেই নেহারি বেচাবিক্রি শেষ হয়ে যায়। সে হিসেবটা মাথায় রেখেই ক্রেতারা নাসির হোটেলে যান নেহারি কিনতে। সাঁইত্রিশ বছর পূর্বে নাসির মহাজন নামক একজন ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠা করেন এই হোটেলটি। তিনি মারা যাবার পর তাঁর ছেলেরা বহু দিন এ ব্যবসা করলেও বর্তমানে চট্টগ্রামের রোস্তোরাঁ ব্যবসায়ী মো. মোশাররফ ঐতিহ্যবাহী এ হোটেরটির  হাল ধরেছেন। নাসির মহাজন নেহারি তৈরি করতেন সীমিত পরিমাণের। ৮০ প্লেটের বেশি করতেন না কখনোই। নতুন মালিক নাসির মহাজনের গুণাগুণ ঠিক রেখেছেন। তিনিও প্রতিদিন তৈরি করেন ৮০ প্লেট নেহারি। একসময় এ দোকানে মাংস চলত এক-দেড় মণ। তখন নেহারি ছিল এক টাকা ২৫ পয়সা প্লেট। এখন হয়েছে ২০ টাকা। এক সময় এখানে খেতেন ট্রাকস্ট্যান্ডের লোকজন ও মিউনিসিপ্যাল অফিসের কর্মচারীরা। আসতেন কোর্টের লোকজনও। এর পরই নাসির মহাজনের হোটেলের খাবারের নাম ছড়িয়ে পড়ে চারদিকে। এখানকার নেহারি খাওয়ার জন্য দূর-দূরান্ত থেকে লোকজন আসে প্রতিনিয়ত।  সময় ও মালিক সবই পরিবর্তন হয়েছে, কিন্তু পরিবর্তন হয়নি নেহারি নামক সুস্বাদু খাবারের। দক্ষ বাবুর্চি আর সততার জন্যই যুগের পর যুগ বছরের পর বছর টিকে আছে নাসির হোটেল আর তার সুস্বাদু খাবার নেহারি!

 

আপ-লোডের তারিখ: ১৭/০৪/২০১৩ ইং।

 
আরো পড়ুন
 

নামসংক্ষিপ্ত বিবরণ
ব্যাটন রুজ রেষ্টুরেন্টগুলশান, গুলশান ২
টপকাপি রেষ্টুরেন্টগুলশান, গুলশান ২
ভিলেজ রেষ্টুরেন্টগুলশান, গুলশান ১
সেভেন হিল রেষ্টুরেন্টকলাবাগান, সোনারগাঁও রোড
এল টরো রেষ্টুরেন্টগুলশান, গুলশান ১
এ্যাট্রিয়াম রেষ্টুরেন্টগুলশান, বারিধারা
ডন জিওভান্নি রেষ্টুরেন্টগুলশান, গুলশান ১
তার্কিশ কাবাব এন্ড পিজাউত্তরা, সেক্টর ৪
প্রিন্স রেষ্টুরেন্ট এন্ড পার্টি সেন্টারধানমন্ডি, ধানমন্ডি
ডিস এন্ড ডেজার্ট রেষ্টুরেন্টগুলশান, বনানী
আরও ২২৩ টি লেখা দেখতে ক্লিক করুন
২৫ বছরে ১৮ সন্তানের জননী!
সর্বপ্রথম পোর্টেবল দ্বীপ
বিদেশিনীর বাংলা প্রেম
জুতার গাছ!
exam
নির্বাচিত প্রতিবেদন
exam
সুমাইয়া শিমু
পিয়া বিপাশা
প্রিয়াংকা অগ্নিলা ইকবাল
রোবেনা রেজা জুঁই
বাংলা ফন্ট না দেখা গেলে মোবাইলে দেখতে চাইলে
how-to-lose-your-belly-fat
guide-to-lose-weight
hair-loss-and-treatment
how-to-flatten-stomach
fat-burning-foods-and-workouts
fat-burning-foods-and-workouts
 
সেলিব্রেটি