পূর্ববর্তী লেখা    পরবর্তী লেখা
পুরো লিস্ট দেখুন

হেয়ার রিবন্ডিং এর নানা দিক

হালের ফ্যাশন সচেতন তরুণীদের মাঝে নিত্য নতুন চুলের ফ্যাশন ঘুরে ফিরেই দেখা যায়। কেউ চুল কাটের ছেলেদের মতো করে, কেউবা চুলকে রাঙিয়ে তোলেন বাহারি রঙে, আবার কেউবা চুলকে ঝরঝরে ও সিল্কি করার জন্য করেন রিবন্ডিং। এক বছর ও ছয় মাস মেয়াদী এই তিন ধরনের হেয়ার রিবন্ডিং সাধারণত পার্লারগুলোতে করা হয়। যেমন: সিল্ক, পাম্প ও স্ট্রেট। খরচ পড়ে সাধারণত তিন হাজার টাকা থেকে শুরু করে বিশ হাজার টাকা পর্যন্ত। হেয়ার রিবন্ডিং এর ক্ষেত্রে রিবন্ডিং পরবর্তী সময়ে ঠিকমতো চুলের যত্ন না নিলে চুলের দফারফা সাড়া হয়ে যায়। হেয়ার রিবন্ডিং এর ফলে স্টাইলে নতুনত্ব বা চেহারার লুকিং এ স্মার্টনেস এলেও পরোক্ষভাবে এগুলো দেহের মারাত্মক ক্ষতিসাধন করে থাকে।

 

হেয়ার রিবন্ডিং কি?

হেয়ার রিবন্ডিং একটি কেমিক্যাল ট্রিটমেন্ট। এটি চুল সোজা করে উজ্জ্বল ও মোলায়েম ভাব এনে দেয়। প্রত্যেকের চুলের কিছু স্বাভাবিক ধরন আছে, কারও চুল ঢেউ খেলানো, কারো কোঁকড়ানো। হেয়ার রিবন্ডিং লোশন এই গঠনটাকে ভেঙ্গে এক নতুন ধাঁচে তৈরি করে একে "স্ট্রেইট লুক" দেয়।  চুলের ধরন, লম্বায় কতটুকু এবং চুল পাতলা না ঘন তার উপর চুলের রিবন্ডিং পদ্ধতি নির্ভর করে। তবে সাধারণত এই ব্যাপারটা একটু দীর্ঘ হয়। ৭-৮ ঘন্টা লাগে রিবন্ডিং করতে।

 

ক্ষতিকর দিক:

  • হেয়ার রিবন্ডিং এর ফলে যে সমস্যাটি সবচেয়ে বেশি দেখা যায় সেটি হলো চুল পড়ে যাওয়া। এর অন্যতম কারণ রিবন্ডিং এর সময় যে কেমিক্যাল ব্যবহার করা হয় তা চুলের গোড়া নরম করে দেয়।
  • হেয়ার রিবন্ডিং এর ফলে মাথার ত্বকে ক্যান্সার হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। হেয়ার রিবন্ডিং এর জন্য যে কীট ব্যবহার করা হয় সেই কীট যদি অতিমাত্রায় ব্যবহার করা হয় তাহলে মাথার ত্বক থেকে এই ক্যান্সার শরীরের ত্বকে ছড়িয়ে পড়ে।
  • মাথাব্যথা, মাথার স্কিন ও চুল চুলকানো, ত্বক জ্বালাপোড়া, নাক দিয়ে পানি পড়ার মতো সমস্যা হতে পারে।  
  • চুলের আগা ফাটা ও চুল রুক্ষ এবং দুর্বল হয়ে যেতে পারে।

 

সমস্যার সমাধান:

  • চুলে নিয়মিত শ্যাম্পু ও কন্ডিশনার ব্যবহার করলে এ ধরনের সমস্যা প্রতিরোধ করা যায়।
  • ভেজা অবস্থায় চুল কোনোভাবেই বাঁধা যাবে না।
  • সর্বদা ঠান্ডা পানি দিয়ে চুল পরিষ্কার করতে হবে। কোনোভাবেই গরম পানি ব্যবহার করা যাবে না।
  • চুল ধোয়ার সময় একটু সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে। চুলে যাতে শ্যাম্পু বা কন্ডিশনার না লেগে থাকে সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে।
  • তাড়াতুড়োর কারণে ভেজা চুল কোনোভাবেই রোদে শুকানো যাবে না।
  • মোটা দাঁতের চিরুনি ব্যবহার করতে হবে।
  • চুল বেনি করা ভুলে যেতে হবে।
  • মাছ, মাংস, দুধ, ডিম ও ফল জাতীয় পুষ্টিকর খাবার নিয়মিত খেতে হবে।
  • চুলের প্রয়োজনীয় ‍পুষ্টির জন্য সপ্তাহে ২ থেকে ৩ বার চুলে হেয়ার মাস্ক লাগাতে পারেন।

 

 
আরো পড়ুন
 

নামসংক্ষিপ্ত বিবরণ
বনসাইN\A, N\A
ডায়েট কাউন্সিলিং সেন্টাররমনা, ইস্কাটন
ব্লু প্লানেট অ্যাকুরিয়াম শপওয়ারী, ওয়ারী
ঘূর্ণিঝড়ে করণীয়ঘূর্ণিঝড়ের সময় করণীয় সম্পর্কে তথ্য রয়েছে
আমরা শোকাহতN\A, N\A
মহররমের ইতিহাস১০ই মহররমের ইতিহাস বর্ণনা করা হয়েছে
ঈদে বাড়তি সতর্কতাN\A, N\A
ডাক টিকেট সংগ্রহকিভাবে এলো ডকটিকেট? সৌখিন সংগ্রাহকগণ কোথায় যাবেন ডাকটিকেট কিনতে?
জাতীয় পতাকাN\A, N\A
টুথব্রাশ নিয়ে ৫ টি মজার তথ্য টুথব্রাশের ব্যবহার নিয়ে কিছু অপ্রচলিত ও বিস্ময়কর তথ্য নিয়ে সাজানো
আরও ২০ টি লেখা দেখতে ক্লিক করুন
২৫ বছরে ১৮ সন্তানের জননী!
সর্বপ্রথম পোর্টেবল দ্বীপ
বিদেশিনীর বাংলা প্রেম
জুতার গাছ!
exam
নির্বাচিত প্রতিবেদন
exam
সুমাইয়া শিমু
পিয়া বিপাশা
প্রিয়াংকা অগ্নিলা ইকবাল
রোবেনা রেজা জুঁই
বাংলা ফন্ট না দেখা গেলে মোবাইলে দেখতে চাইলে
how-to-lose-your-belly-fat
guide-to-lose-weight
hair-loss-and-treatment
how-to-flatten-stomach
fat-burning-foods-and-workouts
fat-burning-foods-and-workouts
 
সেলিব্রেটি