পূর্ববর্তী লেখা    পরবর্তী লেখা
পুরো লিস্ট দেখুন

ড. এম এ ওয়াজেদ মিয়া

বাংলাদেশ পরমাণু শক্তি কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান ড. এম এ ওয়াজেদ ডাক নাম ছিলো সুধা মিয়া। তিনি ছিলেন বাংলাদেশের একজন খ্যাতনামা পরমাণু বিজ্ঞানী ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের কন্যা শেখ হাসিনার স্বামী।

 

জন্ম:

১৯৪২ খ্রিস্টাব্দের ১৬ ফেব্রুয়ারি রংপুর জেলার পীরগঞ্জ উপজেলার ফতেহপুর গ্রামে এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন ড. ওয়াজেদ। তার পিতার নাম আব্দুল কাদের মিয়া এবং মাতার নাম ময়েজুন্নেসা। চার ভাই ও তিন বোনের মধ্যে তিনি ছিলেন সর্ব কনিষ্ঠ।

 

পড়ালেখা:

গ্রামের প্রাইমারি বিদ্যালয়ে চতুর্থ শ্রেণী ও পীরগঞ্জ থানার হাইস্কুলে ষষ্ঠ শ্রেণী পর্যন্ত অধ্যয়ন শেষে তিনি ১৯৫২ সালে রংপুর শহরের সরকারি জেলা স্কুলে সপ্তম শ্রেণীতে ভর্তি হন। এই স্কুল থেকেই ১৯৫৬ সালে ড. ওয়াজেদ ডিসটিনকশনসহ প্রথম বিভাগে মেট্রিক পাশ করেন। ১৯৫৮ সালে রাজশাহী সরকারি কলেজ থেকে ইন্টারমিডিয়েট এবং ১৯৬১ সালে তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের স্নাতক (সম্মান) পরীক্ষায় প্রথম শ্রেণীতে দ্বিতীয় স্থান লাভ করেন এবং ১৯৬২ সালে স্নাতকোত্তর পরীক্ষায় প্রথম শ্রেণীতে প্রথম হন। এছাড়া ১৯৬৭ সালে লন্ডনের ডারহাম বিশ্ববিদ্যালয় হতে ডক্টরেট ডিগ্রি অর্জন করেন।   

 

রাজনৈতিক জীবন:

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যায়নকালীন সময়েই ড. ওয়াজে রাজনীতির সাথে জড়িয়ে পড়েন। ১৯৬১ সালে ফজলুল হক হলের ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি পদে তিনি নির্বাচিত হন। স্বৈরশাসনবিরোধী আন্দোলনের কারণে তিনি কিছুদিন কারাবরণ করেন। ১৯৭১ সালে এদেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম এবং এর আগে ও পরের রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে তার উপস্থিতি ছিল উল্লেখযোগ্য।

 

কর্মজীবন:

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় হতে এমএসসি সম্পন্ন করার পর ১৯৬৩ সালে তৎকালীন পশ্চিম পাকিস্তানের লাহোরে আণবিক শক্তি কমিশনে চাকরিতে যোগ দেন। ১৯৭৫ সালের ১ অক্টোবর থেকে ১৯৮২ সালের ফেব্র"য়ারি পর্যন্ত তিনি ভারতের আণবিক শক্তি কমিশনের দিল্লির ল্যাবরেটরিতে গবেষণায় নিয়োজিত ছিলেন। ১৯৯৯ সালে বাংলাদেশ আণবিক শক্তি কমিশনের চেয়ারম্যান হিসেবে অবসর গ্রহণ করেন।  

 

পারিবারিক জীবন:

১৯৬৭ সালে লন্ডন থেকে ডক্টরেট ডিগ্রি লাভের পর দেশে ফিরে ঐ বছরের ১৭ নভেম্বর বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনাকে বিয়ে করেন ড. ওয়াজেদ। তাদের সংসারে ১ ছেলে ও ১ মেয়ে রয়েছে।

 

উল্লেখযোগ্য গ্রন্থ:

ড. ওয়াজেদ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতক স্তরের পদার্থ বিজ্ঞান, ফলিত পদার্থ বিজ্ঞান ও প্রকৌশলের ছাত্রদের জন্য দুটি গ্রন্থ রচনা করেছেন। তার লেখা ৪৬৪ পৃষ্ঠার ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবকে ঘিরে কিছু ঘটনা ও বাংলাদেশ’ শিরোনামের গ্রন্থটি ১৯৯৩ সালের জানুয়ারিতে এবং ৩২০ পৃষ্ঠার ‘বাংলাদেশের রাজনীতি ও সরকারের চালচিত্র’ শিরোনামের গ্রন্থটি ১৯৯৫ সালের ফেব্র"য়ারিতে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি প্রেস লিমিটেড কর্তৃক প্রকাশিত হয়।

 

জীবনাবসান:

দীর্ঘদিন কিডনি সমস্যা, হৃদরোগ ও শ্বাসকষ্টজনিত রোগে ভুগে ২০০৯ সালের ৯ই মে ঢাকার স্কয়ার হাসপাতালে ৬৭ বছর বয়সে ইন্তেকাল করেন ড. এম এ ওয়াজেদ।

 
আরো পড়ুন
 

নামসংক্ষিপ্ত বিবরণ
হুমায়ুন আহমেদবাংলা সাহিত্যাকাশের উজ্জ্বল নক্ষত্র
কাজী নজরুল ইসলামবাংলার জাতীয় ও বিদ্রোহী কবি
রাজা রামমোহন রায়ঊনবিংশ শতাব্দীর বাংলার নবজাগরণের অন্যতম পথিকৃৎ
মৃণাল সেনবিখ্যাত বাঙালী চলচ্চিত্র পরিচালক, চিত্র নাট্যকার ও লেখক
বেবী মওদুদবিশিষ্ট সাংবাদিক ও লেখিকা
ড. মুহাম্মদ ইউনুসশান্তিতে নোবেল বিজয়ী বাংলাদেশী অর্থনীতিবিদ
রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরবাংলা সাহিত্যের দিকপাল
নেলসন ম্যান্ডেলাদক্ষিণ আফ্রিকার বর্ণবাদ বিরোধী অবিসংবাদিত নেতা
ড. এম এ ওয়াজেদ মিয়াজন্ম: ১৬ ফেব্রু. ১৯৪২ মৃত্যু: ৯ মে, ২০০৯
প্রীতিলতা ওয়াদ্দেদার১৯১১ সালের ৫ই মে জন্মগ্রহণ করেন
আরও ৩০ টি লেখা দেখতে ক্লিক করুন
২৫ বছরে ১৮ সন্তানের জননী!
সর্বপ্রথম পোর্টেবল দ্বীপ
বিদেশিনীর বাংলা প্রেম
জুতার গাছ!
exam
নির্বাচিত প্রতিবেদন
exam
সুমাইয়া শিমু
পিয়া বিপাশা
প্রিয়াংকা অগ্নিলা ইকবাল
রোবেনা রেজা জুঁই
বাংলা ফন্ট না দেখা গেলে মোবাইলে দেখতে চাইলে
how-to-lose-your-belly-fat
guide-to-lose-weight
hair-loss-and-treatment
how-to-flatten-stomach
fat-burning-foods-and-workouts
fat-burning-foods-and-workouts
 
সেলিব্রেটি