পূর্ববর্তী লেখা    পরবর্তী লেখা
পুরো লিস্ট দেখুন

ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি

উচ্চ শিক্ষা প্রদানের উদ্দেশ্যে ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি ২০০৩ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। এটি একটি বেসরকারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। এটার ৩টি ক্যাম্পাস রয়েছে। এই ইউনিভার্সিটিতে ‘ডে’ এবং ‘ইভিনিং’ ২টি শিফট চালু আছে। অনার্সদের জন্য ‘ডে’ শিফটে ক্লাস হয়। মাস্টার্সদের জন্য ‘ডে’ এবং ‘ইভিনিং’ ইভিনিং ২টি শিফটেই ক্লাস হয়। ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটিতে গ্রেডিং পদ্ধতিতে ফলাফল দেওয়া হয় এবং এদের নিজস্ব কোন ক্যাম্পাস নেই।

 

 

অবস্থান

ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি গ্রীন রোড এলাকায় অবস্থিত। ল্যাব হাসপাতালের পূর্ব-উত্তর কোণে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের অবস্থান।

 

ক্যাম্পাস

মূল ক্যাম্পাস

বাড়ি: ৩/এ, সড়ক: ৪, ধানমন্ডি, ঢাকা- ১২০৫

ইউনিট ১

বাড়ি: ১৬, সড়ক: ৭, ধানমন্ডি, ঢাকা- ১২০৫

ইউনিট ২

মেহের প্লাজা

বাড়ি: ১৩/এ, সড়ক: ৫, ধানমন্ডি

ফোন: ৯৬১১৪১০, ৯৬৬৭৪৩৫, ৯৬৬৭৪৩৬, ৯৬৭৭৪৭৪, ৮১৫৫৩০৮, ৯৬৬৭৪৩৬

 

সরকারী দৃষ্টিভঙ্গি:

  • ১৩ ডিসেম্বর ২০১০ ইং তারিখে দৈনিক প্রথম আলো পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদ অনুযায়ী নিজস্ব ক্যাম্পাস তৈরি করার জমি না থাকার কারণে শিক্ষা মন্ত্রণালয় এই বিশ্ববিদ্যালয়কে লাল সংকেত প্রদান করে। এই প্রেক্ষাপটে মন্ত্রণালয় সিদ্ধান্ত নিয়েছে, যেসব বিশ্ববিদ্যালয় স্থায়ী ক্যাম্পাসে পর্যাপ্ত অবকাঠামো এবং সুযোগ-সুবিধা সৃষ্টি করতে ব্যর্থ হয়েছে, তারা আগামী সেপ্টেম্বর ২০১১ (ফল সেমিস্টার) এর পরে আর কোনো প্রোগ্রাম বা কোর্সে নতুন ছাত্রছাত্রী ভর্তি করতে পারবে না।  (মূল লিংক)
  • আগস্ট ২০১২ ইং তারিখে দৈনিক প্রথম আলো পত্রিকায় প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় সংক্রান্ত আরও একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। সেখানে দেশের বৈধ ক্যাম্পাসধারী বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর তালিকা প্রকাশ করা হয়। সেই তালিকায় এই বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম রয়েছে।  (মূল লিংক)
  • ১৬ জুলাই ২০১৩ ইং তারিখে একটি পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদ থেকে জানা যায় নির্ধারিত সময়ের মধ্যে নিজস্ব ক্যাম্পাস তৈরি না করার কারণে শিক্ষা মন্ত্রণালয় দেশের ১১টি বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন শিক্ষার্থী ভর্তি কার্যক্রম বন্ধ করে দিয়েছে। সেই তালিকায় এই বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম নেই। (মূল লিংক)

আপডেট: ২০ জুলাই, ২০১৩

 

ভর্তি প্রক্রিয়া

  • আবেদন ওয়েবসাইটে (www.wub.edu.bd) থেকে ডাউনলোড করে যথাযথভাবে পূরণ করে জমা দিতে হয়। ভর্তি আবেদন ফরম বিশ্ববিদ্যালয় অফিস থেকেও সংগ্রহ করা যায়।
  • আবেদন ফরমের মূল্য ৫০০ টাকা।
  • ভর্তি আবেদন পূরণ করে মেইলের মাধ্যমেও পাঠানো যায়।
  • জমাকৃত আবেদন ফরম যাচাই করার পর আবেনদকারীকে চিঠি বা ই-মেইলের মাধ্যমে জানানো হয়। প্রাথমিক বাছাইয়ে বাদ পড়েছে এমন আবেদনকারীকেও চিঠি বা মেইলের মাধ্যমে জানানো হয়।
  • বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য নির্বাচিত আবেদনকারীদের এ্যাডমিশন অফিসে যোগাযোগ করতে হয় এবং ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে হয়।
  • ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্নের পর শিক্ষার্থীকে ক্লাসের তারিখ ও সময় জানিয়ে দেওয়া হয়।

 

ভর্তি যোগ্যতা

ব্যাচেলর অব বিজনেস এ্যাডমিনিস্ট্রেশন

এসএসসি, এইচএসসি-তে আলাদাভাবে জিপিএ ২.৫০ বা ২য় বিভাগ অথবা মোট জিপিএ ৬.০০ কিন্তু যেকোন একটি-তে সর্বনিম্ন জিপিএ ২.০০ থাকলেও আবেদন করা যায়।

মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য মোট জিপিএ ৫.০০ থাকতে হয়।

মাস্টার্স অব বিজনেস এ্যাডমিনিস্ট্রেশন (রেগুলার)

মেয়াদ: ২৪ মাস

ক্রেডিট আওয়ার: ৬৬ ক্রেডিট আওয়ার

যোগ্যতা: যেকোন বিষয়ে স্নাতক

মাস্টার্স অব বিজনেস এ্যাডমিনিস্ট্রেশন (এক্সিকিউটিভ)

মেয়াদ: ১৬ মাস

ক্রেডিট আওয়ার: ৪৮

যোগ্যতা: কমার্স, বিজনেস, সায়েন্স/ আর্টস/ মেডিকেল সায়েন্স/ ইঞ্জিনিয়ারিং/ সমমানের যেকোন বিষয়ে ন্যূনতম ১৪ বছরের শিক্ষাজীবন সহ গ্রাজুয়েশন সম্পন্ন থাকতে হয় এবং ন্যূনতম ২ বছরের কাজের অভিজ্ঞতা থাকতে হয়।

মাস্টার্স অব বিজনেস এ্যাডমিনিস্ট্রেশন (এক্সিকিউটিভ)

মেয়াদ: ১২ মাস

ক্রেডিট আওয়ার: ৩৬

যোগ্যতা: ৪ বছরের বিবিএ, এমকম থাকতে হয়। এক্ষেত্রে চাকুরীর অভিজ্ঞতা আবশ্যক নয়।

মাস্টার্স অব বিজনেস এডুকেশন

মেয়াদ: ১২-২৪ মাস

ক্রেডিট আওয়ার: ৩৬-৬৬

যোগ্যতা: স্নাতক (১৪ বছরের শিক্ষাজীবনসহ) এক্ষেত্রে বিজনেস ও টিচিং অভিজ্ঞতা থাকা আবশ্যক নয়।

ব্যাচেলর অব বিজনেস এ্যাডমিনিস্ট্রেশন

মেয়াদ: ৪ বছর

ক্রেডিট আওয়ার: ১২৯‌

ব্যাচেলর অব ট্যুরিজম এন্ড হোটেল ম্যানেজমেন্ট

মেয়াদ: ৪ বছর

ক্রেডিট আওয়ার: ১২৬‌

 

ফ্যাকাল্টি অব ইঞ্জিনিয়ারিং

কোর্সগুলো: বিএসসি ইন ইইই, সিভিল, মেকাট্রনিকস, সিএসই, সি আই এস, টেক্সটাইল এন্ড আর্কিটেকচার

যোগ্যতা: এসএসসি, এইচএসসি-তে আলাদাভাবে জিপিএ ২.৫০ বা ২য় বিভাগ অথবা মোট জিপিএ ৬.০০ কিন্তু যেকোন একটি সর্বনিম্ন জিপিএ ২.০০ থাকলেও আবেদন করা যায়। মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য মোট জিপিএ ৫.০০ থাকতে হয়।

ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিংদের জন্য: ইঞ্জিনিয়ারিং প্রোগ্রাম

বিষয়

ক্রেডিট আওয়ার

মেয়াদ

যোগ্যতা

বি এস সি ইন ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেকট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং

ন্যূনতম ১৩৭.৫

৪ বছর

ইলেকট্রনিক্স, ইলেকট্রিক্যাল পাওয়ার রেফ্রিজারেশন বা এ সম্পর্কিত যেকোন বিষয়ে ডিপ্লোমা

বি এস সি ইন সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং

ন্যূনতম ১৪২

৪ বছরের কম

সিভিল/ স্ট্রাকচারাল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে বা এ সম্পর্কিত যেকোন বিষয়ে ডিপ্লোমা এবং আর্কিটেকচারে ডিপ্লোমা।

বিএসসি ইন মেকাট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং

ন্যূনতম ১৪২

৪ বছরের কম

মেকানিক্যাল, ইলেকট্রিক্যাল,ইলেকট্রনিক্স, পাওয়ার রেফ্রিজারেশন, কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বা এ সম্পর্কিত বিষয়ে ডিপ্লোমা

বিএসসি ইন কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং

ন্যূনতম ১১৫.৫

৪ বছরের কম

কম্পিউটার সায়েন্স, কম্পিউটিং সিআইএস, সিএসই, ইনফরমেশন টেকনোলজি, সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বা এ সম্পর্কিত বিষয়ে ডিপ্লোমা।

বিএসসি ইন কম্পিউটিং এন্ড ইনফরমেশন সায়েন্স

ন্যূনতম ১১৫.৫

৪ বছরের কম

কম্পিউটার সায়েন্স, কম্পিউটিং সিআইএস, সিএসই, ইনফরমেশন টেকনোলজি, সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বা এ সম্পর্কিত বিষয়ে ডিপ্লোমা।

বিএসসি ইন টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং

১৪৮

"

ইঞ্জিনিয়ারিং এর যেকোন শাখায় ডিপ্লোমা

ব্যাচলের অব আর্কিটেকচার

১৯০

৫ বছরের কম

আর্কিটেকচার, সার্ভেইং সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং এ ডিপ্লোমা

 

ফ্যাকাল্টি অব আর্টস এন্ড হিউম্যানিটিস

বিষয়

ক্রেডিট আওয়ার

মেয়াদ

যোগ্যতা

বিএ ইন ইংলিশ

ন্যূনতম ১১৪

৪ বছর

এসএসসি, এইচএসসি-তে আলাদাভাবে জিপিএ ২.৫০ বা ২য় বিভাগ অথবা মোট জিপিএ ৬.০০ (সেক্ষেত্রে যেকোন একটি-তে সর্বনিম্ন জিপিএ ২.০০ থাকলেও আবেদন করা যায়)। মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য মোট জিপিএ ৫.০০ থাকতে হয়।

এম এ ইন ইংলিশ (ফাইনাল)

৩৬

১ বছর

৩/৪ বছরের বিএ ইন ইংলিশে ২য় বিভাগ থাকতে হয়।

এম এ ইন ইংলিশ (প্রিলিমিনারী) এবং ফাইনাল)

৬০

২ বছর

আর্ট, কমার্স, বিজনেস/ সায়েন্স এ ন্যূনতম ১৪ বছরের শিক্ষাজীবনসহ যেকোন বিষয়ে স্নাতকে ২য় বিভাগ থাকতে হয়।

 

ডিপার্টমেন্ট অব ফার্মাসী

বিষয়

ক্রেডিট আওয়ার

মেয়াদ

যোগ্যতা

ব্যাচেলর অব ফার্মাসী (বি. ফার্মা)

১৫৫

৪ বছর

এসএসসি, এইচএসসি-তে আলাদাভাবে জিপিএ ২.৫০ বা ২য় বিভাগ অথবা মোট জিপিএ ৬.০০ কিন্তু যেকোন একটি সর্বনিম্ন জিপিএ ২.০০ থাকলেও আবেদন করা যায়। মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য মোট জিপিএ ৫.০০ থাকতে হয়

 

ডিপার্টমেন্ট অব

বিষয়

ক্রেডিট আওয়ার

মেয়াদ

যোগ্যতা

ব্যাচেলর অব ল

১২০

৪ বছর

এসএসসি, এইচএসসি-তে আলাদাভাবে জিপিএ ২.৫০ বা ২য় বিভাগ অথবা মোট জিপিএ ৬.০০ কিন্তু যেকোন একটি সর্বনিম্ন জিপিএ ২.০০ থাকলেও আবেদন করা যায়। মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য মোট জিপিএ ৫.০০ থাকতে হয়

এলএল বি

৬০

২ বছর

১৪ বছরের শিক্ষাজীবন এবং যেকোন বিষয়ে স্নাতক থাকতে হয়।

মাস্টার্স অব ল

৪২

১ বছর

যেকোন স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় হতে এলএলবি ডিগ্রি থাকতে হয়।

৬৬

২ বছর

 

বিষয়

মেয়াদ

ক্রেডিট

খরচ (টাকা)

ডিপার্টমেন্ট অব বিবিএ

৪৮ মাস

১২৬

২,২৮,০০০/-

ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট

৪৮ মাস

১২৬

২,৭৬,০০০/-

কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং

৪৮ মাস

১৪৪

২৩৯২/-

সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং

৪৮ মাস

১৬২

৩৫৪২৫০/-

ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেকট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং

৪৮ মাস

১৬০

৩২৭১২৫/-

মেকাট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং

৪৮ মাস

১৩৩

৩০২৭০০/-

এলএলবি (অনার্স)

৪৮ মাস

১১৪

১৭২৮০০/-

এলএলবি (পাস)

২৪ মাস

৫৪

৮০০০০/-

ইংলিশ

৪৮ মাস

১১৪

১৪৫০০০/-

ফার্মেসী

৪৮ মাস

১৫৫

৩৯৮০০০/-

এমবিএ (এক্সিকিউটিভ)

২৪ মাস

৪৮

১১১৬০০/-

এমবিএ (রেগুলার)

২৪ মাস

৪৮

১৫০০০০/-

এলএলএম

১২ মাস

৪২

৫৮০০০/-

ইংলিশ (ফাইনাল)

১২ মাস

৪২

৬২২০০/-

ইংলিশ (প্রিলি)

২৪ মাস

৬৬

৯৪০০০/-

 

খরচ প্রক্রিয়া

  • ভর্তির ফরম + ভর্তি ফি= ১৯,৯০০ টাকা
  • ভর্তি পরীক্ষা দিতে হয় না।
  • বিবিএ প্রোগ্রামের মোট ক্রেডিট ১৬২, সেমিস্টার ১২ টি এবং ৪ বছর মেয়াদী।
  • বিবিএ প্রোগ্রামের ক্রেডিট প্রতি খরচ ২,৫০০ টাকা।
  • এখানে সেমিস্টারের খরচ দু’ভাবে পরিশোধের ব্যবস্থা রয়েছে মাসিক ও সেমিস্টার ভিত্তিতে। মাসিক ভিত্তিতে হলে প্রতি মাসের ১ থেকে ১০ তারিখের মধ্যে প্রতি মাসের নির্ধারিত খরচ পরিশোধ করতে হয় এবং সেমিস্টার ভিত্তিতে হলে প্রত্যেক সেমিস্টারের রেজিস্ট্রেশনের সময় সম্পূর্ণ সেমিস্টার খরচ পরিশোধ করতে হয়। এভাবে অন্যান্য প্রোগ্রামের খরচ পরিশোধ করতে হয়।
  • সেমিস্টারের খরচ ক্রেডিটের উপর নির্ভর করে। ক্রেডিট সংখ্যা স্ব-স্ব বিভাগের শিক্ষকগণ নির্ধারণ করে থাকেন।

 

শিক্ষা বৃত্তি

  • জিপিএ ৫.০০ প্রাপ্তরা ১০০%, ৪.৭৫-৪.৯৯ প্রাপ্তরা ৫০%, ৪.৫০-৪.৭৪ প্রাপ্তরা ৫০%, ৪.০০-৪.৪৯ প্রাপ্তরা ২৫% বৃত্তি সুবিধা পায় ১ বছরের জন্য।
  • যাদের সিজিপিএ ন্যূনতম ৩.৭০ থাকে তারা পরের সেমিস্টারে ১০%-৫০% বৃত্তি সুবিধা যাদের সিজিপিএ ন্যূনতম ৪.০০ থাকে তারা ৫০-১০০% বৃত্তি সুবিধা পায়।

 

অন্যান্য সুবিধা

  • ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটিতে পড়ালেখার বাইরেও বিভিন্ন খেলায় উৎসাহিত করার জন্য ক্রিকেট, ফুটবল, দাবা, সাইবার গেমস, ইত্যাদি খেলার ব্যবস্থা করে থাকে।
  • এদের নিজস্ব কোন মাঠ নেই।
  • তাই ভাড়া করা মাঠে খেলার ব্যবস্থা করে থাকে।

 

ক্রেডিট ট্রান্সফার

  • ন্যূনতম ৩.৭৫ থাকলে দেশে ট্রান্সফার কার যায়। বিদেশে ভার্সিটি থেকে ক্রেডিট ট্রান্সফার করা যায় না।
  • কিন্তু শিক্ষার্থী নিজ উদ্যোগে ক্রেডিট ট্রান্সফার করতে পারে।

 

লাইব্রেরী ব্যবস্থা

  • এই বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব লাইব্রেরী অ্যাডমিশন ভবনের ২য় তলায় অবস্থিত।
  • লাইব্রেরী কার্ড ধারীরা বই পেতে পারে এবং বাসায় বই নিয়ে যেতে পারে।
  • এখানে টেক্সট বুক, জার্নালস, রেফারেন্স বুক, রের কালেকশন বুকস ইত্যাদি পাওয়া যায়।
  • লাইব্রেরী সকাল ৮.৩০ টা থেকে রাত ৯ টা পর্যন্ত খোলা থাকে।

 

অন্যান্য

  • ওয়েব সাইটে রেজাল্ট, বন্ধের ঘোষণা, নোটস, এসাইনমেন্ট ইত্যাদি প্রায় সকল প্রকার তথ্য পাওয়া যায়।
  • এর প্রশাসনিক ভবন বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যেই অবস্থিত।
  • সকল প্রকার তথ্য প্রশাসনিক ভবন থেকেই সংগ্রহ করা যায়।
  • এখানে মোট ৮টি ক্লাব রয়েছে।
  • সদস্যপদ আহবান করা হলে ফর্মের মাধ্যমে সদস্য হওয়া যায়।

(আপলোডের তারিখ : ১৩/০৬/২০১২)

 
আরো পড়ুন
 

নামসংক্ষিপ্ত বিবরণ
পিপলস ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশমোহাম্মদপুর, আসাদ গেট
নর্দার্ন ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশতেজগাঁও, কাওরান বাজার
আশা ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশমোহাম্মদপুর, মোহাম্মদপুর
ইস্টার্ণ ইউনিভার্সিটিধানমন্ডি, ধানমন্ডি
স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশধানমন্ডি, ধানমন্ডি
নর্থ সাউথ ইউনিভার্সিটিগুলশান, বারিধারা
প্রাইম ইউনিভার্সিটিদারুসসালাম, দারুসসালাম
দি মিলেনিয়াম ইউনিভার্সিটিপল্টন, রাজারবাগ
ভিক্টোরিয়া ইউনিভার্সিটিকলাবাগান, পান্থপথ
ব্র্যাক ইউনিভার্সিটিগুলশান, মহাখালী
আরও ৩৯ টি লেখা দেখতে ক্লিক করুন
২৫ বছরে ১৮ সন্তানের জননী!
সর্বপ্রথম পোর্টেবল দ্বীপ
বিদেশিনীর বাংলা প্রেম
জুতার গাছ!
exam
নির্বাচিত প্রতিবেদন
exam
সুমাইয়া শিমু
পিয়া বিপাশা
প্রিয়াংকা অগ্নিলা ইকবাল
রোবেনা রেজা জুঁই
বাংলা ফন্ট না দেখা গেলে মোবাইলে দেখতে চাইলে
how-to-lose-your-belly-fat
guide-to-lose-weight
hair-loss-and-treatment
how-to-flatten-stomach
fat-burning-foods-and-workouts
fat-burning-foods-and-workouts
 
সেলিব্রেটি