শিক্ষা

 

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়

শিক্ষা মানুষের একটি অধিকার, বিষয়টি মাথায় রেখে সরকার ঢাকায় কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালনা করছে, যা পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় নামে পরিচিত।। এসব বিশ্ববিদ্যালয় সরকারী নিয়মনীতি দ্বারা পরিচালিত। ছাত্র বেতন বাবদ কিছু টাকা আসলেও মূলত ভর্তূকি দিয়ে সরকার এসব বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালনা করে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়

বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়

বিস্তারিত

===============================================================

 

বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়

বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের ধারণাটি তুলনামূলকভাবে নতুন। অতিরিক্ত জনসংখ্যা এবং মানুষের আর্থিক সক্ষমতা বৃদ্ধির কারণে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গুলি বর্ধিত চাহিদা মেটাতে না পারায় সরকার বেসরকারী বা প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুমোদন দেয়। কিছু বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয় অত্যন্ত মানসম্পন্ন শিক্ষা প্রদান করে বেশ প্রশংসিতও হচ্ছে।

নর্থ সাউথ ইউনিভার্সিটি

আমেরিকান ইন্টা: ইউনিভার্সিটি

ব্র্যাক ইউনিভার্সিটি

আশা ইউনিভার্সিটি

বিস্তারিত

===============================================================

মেডিকেল কলেজ

ছোট থেকেই অনেকে স্বপ্ন দেখেন চিকিৎসক হওয়ার। আবার অনেক (অধিকাংশ বললেও হয়ত অত্যুক্তি হবে না) বাবা-মার স্বপ্ন থাকে সন্তানকে চিকিৎসক বানাবেন। চিকিৎসক তৈরির প্রতিষ্ঠান হলে মেডিকেল কলেজ। চিকিৎসক হওয়ার জন্য মানুষের এতই আগ্রহ যে সরকারী মেডিকেল কলেজগুলো তার চাপ সামলাতে পারছিল না। ঢাকায় তিনটি সরকারী মেডিকেল কলেজের পাশাপাশি নতুন-পুরাতন মিলিয়ে বেশ কয়েকটি বেসরকারী মেডিকেল কলেজ রয়েছে। এককভাবে একটি মাত্র ভর্তি পরীক্ষার মাধ্যমে মেডিকেল কলেজে ছাত্র ভর্তি করা হয়।

হলি ফ্যামিলি মেডিকেল কলেজ

বাংলাদেশ মেডিকেল কলেজ

আদ-দ্বীন মহিলা মেডিকেল কলেজ

জেড. এইচ শিকদার উইমেন মেডিকেল কলেজ

আর্মড ফোর্সেস মেডিকেল কলেজ

শাহাবুদ্দিন মেডিকেল কলেজ

বিস্তারিত

===============================================================

ডেন্টাল কলেজ

মানুষের শরীরের বিভিন্ন রোগব্যাধির বিষয়টি দেখেন এম.বি.বি.এস. চিকিৎসকগণ, অবস্থা জটিল হলে রোগীগণ বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের দারস্থ হন। তারাও এম.বি.বি.এস. কোর্সের মাধ্যমে ক্যারিয়ার শুরু করেন। দাঁতের বিষয়টি দেখেন দন্ত বিশেষজ্ঞ। এমবিবিএস কোর্স নয় ডেন্টাল কলেজের বিডিএস কোর্সের মাধ্যমে দন্ত বিশেষজ্ঞ তৈরি হয়।  মিরপুরের সরকারী ডেন্টাল কলেজ ছাড়াও ঢাকায় বেশ কয়েকটি বেসরকারী ডেন্টাল কলেজ আছে এখন।

ইউনিভার্সিটি অব ডেন্টাল কলেজ

বাংলাদেশ ডেন্টাল কলেজ    

বিস্তারিত

===============================================================

বিদেশে উচ্চ শিক্ষা

উচ্চ মাধ্যমিক পাশের পর উচ্চ শিক্ষা গ্রহণের জন্য ঢাকায় সরকারী-বেসরকারী মিলিয়ে বেশ অনেকগুলো শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আছে। পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় আছে ৮ টি। আর বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়গুলো মূলত ঢাকাকেন্দ্রিক। সরকারী মেডিকেল কলজে আছে ৩ টি আর বেসরকারী মেডিকেল কলেজের সংখ্যাও দিন দিন বাড়ছে। এছাড়া পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট,  ডেন্টাল কলেজসহ আরও বিভিন্ন ধরনের উচ্চ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আছে। প্রতি বছর উচ্চ শিক্ষার জন্য একটি বিপুল সংখ্যক ছাত্র-ছাত্রীগণ দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে ঢাকায় আসেন। আর বিভিন্ন বিদেশী বিশ্ববিদ্যালয় এবং কলেজগুলোও ঢাকায় তাদের ছাত্র-ছাত্রী ভর্তি কার্যক্রম পরিচালনা করার জন্য লিয়াজো অফিস স্থাপন করেছেন। অপরদিকে এডুকেশন কনসালটেন্সি ফার্মগুলো বিদেশে উচ্চ শিক্ষার ক্ষেত্রে অর্থের বিনিময়ে প্রয়োজনীয় লজিষ্টিক সাপোর্ট দিচ্ছে।

ভিসা ওয়ার্ল্ড ওয়াইড

অস্ট্রেলিয়ায় উচ্চ শিক্ষা

বিএসবি গ্লোবাল নেটওয়ার্ক

ইংল্যান্ডে উচ্চ শিক্ষা

বিস্তারিত

===============================================================

কলেজ

মাধ্যমিক পরাবর্তী উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ে পড়াশোনা এবং উচ্চমাধ্যমিক পরবর্তী স্নাতক ও স্নাতকোত্তর পর্যায়ে পড়াশোনার জন্য ঢাকার সরকারী এবং বেসরকারী কলেজগুলোর তথ্য থাকছে এ অংশে। উচমাধ্যমিক পার্যায়ের পড়াশোনা শিক্ষাবোর্ড নিয়ন্ত্রণ করে আর উচ্চমাধ্যমিক পরবর্তী কোর্সগুলো নিয়ন্ত্রণ করে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়। তবে কিছু ক্ষেত্রে ব্যতিক্রমও রয়েছে। যেমন গার্হস্থ্য অর্থনীতি কোর্সটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালনা করে।

নটরডেম কলেজ

চাটার্ড ইউনিভার্সিটি কলেজ

কলেজ অব এভিয়েশন টেকনোলজী

ঢাকা কমার্স কলেজ

তিতুমীর কলেজ

এমআইএসটি

স্কলাশটিকা স্কুল

গভর্নমেন্ট ল্যাবরেটরী হাই স্কুল

অগ্রণী স্কুল এন্ড কলেজ

হলিক্রস কলেজ

বিস্তারিত

===============================================================

স্কলারশীপ

শিক্ষা মানুষের অধিকার হলেও আর্থিক বাস্তবতায় সবার পক্ষে লেখাপড়া চালিয়ে যাওয়া সম্ভব হয় না। এ সমস্যা সমাধানে বাংলাদশ সরকারের বৃত্তি ছাড়াও মাধ্যমিক, উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ের লেখাপড়ার জন্য বিভিন্ন ব্যাংক ও দাতব্য সংস্থার বৃত্তি রয়েছে। আবার উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে যাওয়ার স্বপ্নও দেখেন অনেকে। কিন্তু বিদেশে পড়াশোনার যোগ্যতা অর্জন করলেও আর্থিক কারণে সবার পক্ষে বিদেশে যাওয়া সম্ভব হয় না। তবে এক্ষেত্রে বিভিন্ন সরকার ও সংস্থা সহায়ক ভূমিকা পালন করে আসছে। এসব বৃত্তির আওতায় কেবল পড়াশোনার খরচ নয়, অনেক ক্ষেত্রে অন্যান্য খরচও দেয়া হয়। দেশে-বিদেশে বিভিন্ন ধরনের বৃত্তির খবর থাকছে এ বিভাগে।

বিস্তারিত

===============================================================

কারিগরী শিক্ষা

শিল্প প্রতিষ্ঠানে দক্ষ জনশক্তি সরবরাহ করে অর্থনীতিকে গতিশীল করার জন্য কারগরি শিক্ষার বিকল্প নেই। আবার দেশের বাইরেও অদক্ষ জনশক্তি রপ্তানি করে খুব বেশি বৈদেশিক মুদ্রা আয় করা যায় না। এক্ষেত্রেও দক্ষ জনশক্তি তৈরি তৈরির জন্য কারিগরি শিক্ষা জরুরি। ঢাকার পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটসহ বিভিন্ন সরকারী-বেসরকারী কারগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের তথ্য পাওয়া যাবে এখানে। এসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোয় বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড এবং জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে বিভিন্ন মেয়াদী ডিপ্লোমা কোর্স করানো হয়। অবশ্য অনেক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কেবল তাদের একটি সার্টিফিকেট দিয়ে থাকে, কোন বোর্ড বা বিশ্ববিদ্যালয়ের এফিলিয়েশন নেই এদের।

এ্যারোনটিক্যাল ইন্সটিটিউট অফ বাংলাদেশ

ইনক্রাক্স স্কুল অব ডিজাইন

বাইনারী ইনফরমেশন টেকনোলজি

বাংলাদেশ ইনষ্টিটিউট অব মেডিকেল সাইন্স (বিমস)

বিস্তারিত

===============================================================

শিক্ষা বোর্ড

বাংলাদেশে মাধ্যমিক এবং উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ে এসএসসি এবং এইচএসসি পরীক্ষা নিয়ন্ত্রণের জন্য সাতটি শিক্ষা বোর্ডের পাশাপাশি মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ড আছে। মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড মাদ্রাসা সমূহের দাখিল, আলিম, ফাজিল এবং কামিল পরীক্ষা নিয়ন্ত্রণ করে থাকে। এছাড়া কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এসএসসি এবং এইচএসসি সমতূল্য কোর্স পরিচালিত হয়। সারাদেশের মাদ্রাসা শিক্ষা এবং কারিগরি শিক্ষা কার্যক্রমের তদারকি এই দুই বোর্ডের মাধ্যমেই পরিচালিত হয়ে থাকে। কাজেই ঢাকায় মোট তিনটি শিক্ষা বোর্ডের দপ্তর অবস্থিত।

        ঢাকা শিক্ষা বোর্ড        

বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড

বিস্তারিত

===============================================================

স্কুল

কথা বলা শেখার পর সন্তানের শিক্ষা জীবন শুরু করতে ঢাকার কর্মব্যস্ত অভিভাবকগণ চিন্তিত হয়ে পড়েন কেমন করে কোথায় ভর্তি করাবেন আদরের সন্তানটিকে। এ লক্ষ্যে খোঁজ নিতে হয় ঢাকার বিভিন্ন স্কুল গুলোর ফরম সংগ্রহ পদ্ধতি, প্রয়োজনীয় কাগজপত্র, ভর্তি ফি, মাসিক বেতন, স্কুলের মান, স্কুলের পরিবেশ সস্পর্কে। কিন্তু কর্মব্যস্ততার মাঝে অনেক অভিভাবকগণই সময় করে উঠতে পারেন না। ফলে কর্মব্যস্ত অভিভাবকগণ অনায়াসে অন লাইন ঢাকা গাইড থেকে ঢাকার স্কুলগুলোর সম্পর্কে সহজেই তথ্য পেতে পারেন।

স্কলাশটিকা স্কুল

গভর্নমেন্ট ল্যাবরেটরী হাই স্কুল

মতিঝিল মডেল হাই স্কুল এন্ড কলেজ

আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল স্কুল

বিস্তারিত

===============================================================

লাইব্রেরী

স্কুলে পড়াশোনা না করলেও টমাস আলভা এডিসন বাল্যকালেই তাঁর পাড়ার লাইব্রেরীর সব বই পড়ে শেষ করেছিলেন। হয়ত একারণেই তিনি ইতিহাসের অন্যতম শ্রেষ্ঠ উদ্ভাবকে পরিণত হয়েছিলেন। জ্ঞানের পরিপূর্ণ বিকাশে গ্রন্থাগার সূতিকাগার হিসেবে পরিচিত। সারাদেশেই লাইব্রেরী আছে, তবে মূলত ঢাকা শহরকে কেন্দ্র করেই বড় লাইব্রেরীগুলো গড়ে উঠেছে। তাছাড়া বিশেষ প্রতিষ্ঠানের লাইব্রেরীও রয়েছে যেমন- ব্যান্ডসডক লাইব্রেরি, পরমাণু শক্তি কেন্দ্র, বাংলা একাডেমী, এশিয়াটিক সোসাইটি লাইব্রেরি। বৃটিশ কাউন্সিল, আমেরিকান কালচারাল সেন্টার, আলিয়ঁস ফ্রঁসেজ, বিশ্বব্যাংকসহ বিভিন্ন বিদেশী সংস্থার লাইব্রেরীও আছে এ শহরে। আর সবার কাছে পরিচিত পাবলিক লাইব্রেরিতো রয়েছেই।

কেন্দ্রীয় পাবলিক লাইব্রেরী

জাতীয় গ্রন্থাগার

বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্র

রামকৃষ্ণ গ্রন্থাগার

বিস্তারিত

===============================================================

সাংস্কৃতিক জগৎ

মানসিক প্রশান্তি বা নেহাত বিনোদনের জন্য এক সময় সংগীত ও চারুকলার প্রতি মানুষের আসক্তি ছিল। সময় বদলেছে বর্তমানে জীবিকার প্রয়োজনে মানুষ সংগীত ও চারুকলার প্রতি আগ্রহী হয়ে উঠছে। সংগীত ও চারুকলা নিপুণভাবে আয়ত্ত করার জন্য মহানগরীতে রয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা ইনস্টিটিউট, ছায়ানট, নজরুল একাডেমী, সংগীত কলেজ, বুলবুল ললিত কলা একাডেমী এবং শিশু একাডেমী। এছাড়া পাড়া মহল্লা বিভিন্ন কিন্ডার গার্টেন স্কুলে গড়ে উঠেছে সংগীত ও চারুকলা প্রশিক্ষণ কার্যক্রম। নিজস্ব চেষ্টা, পরিশ্রম আর সাধনার গুণে শুধু দেশেই নয় বহি:বিশ্বে সুনাম অর্জন করা যা এই সংগীত ও চারুকলার অঙ্গনে।   

অদ্রি (শিশুদের উচ্চারণ শিক্ষা কেন্দ্র)

ছায়ানট

আলিয়ঁস ফ্রঁসেজ

চারুকলা ইনস্টিটিউট

বিস্তারিত

===============================================================

বইপত্র

বই পড়ার অভ্যাস সবার নেই। অধ্যাপক আবদুল্লাহ আবু সায়ীদের মতে শতকরা ১০-২০ ভাগের মত ছাত্র-ছাত্রীদের দিয়ে বই পড়ানো সম্ভব। তিনি অবশ্য বই পড়া বলতে পাঠ্যবহির্ভূত বইয়ের কথা বলেছেন। আবার সৈয়দ মুজতবা আলীর বিখ্যাত উক্তি, বই কিনে কেউ দেউলিয়া হয় না। তবে যেখানে বই পড়ার এবং কেনার অভ্যাসটাই সেভাবে নেই, সেখানে তাঁর উক্তির সঠিকতা যাচাই করা কঠিন বটে! বই পড়তে যাদের বিশেষ ভালো লাগে না, তারাও বই কেনেন এবং পড়েন কখনো ডিগ্রী নেবার জন্য, কখনো পেশায় উন্নতির জন্য।

স্কুল কলেজের পাঠ্যবই সহজেই পাওয়া যায়। ওগুলো কিনতে কোথায় যেতে হবে সেটা ভাবতে হয় না। কিন্তু যে সব বইয়ের পাঠক কম, সে সব বই কিনতে গিয়ে অনেক সময় সমস্যায় পড়তে হয়। জনপ্রিয় লেখকের বই পাওয়া গেলেও সাহিত্য নির্ভর অন্যান্য বইগুলো পাড়ার বইয়ের দোকানে তেমন পাওয়া যায় না। এসব বই পাওয়ার সহজতম উপায় হচ্ছে একুশে বই মেলার জন্য অপেক্ষা করা, যেখানে বাংলাদেশের শীর্ষস্থানীয় সব প্রকাশক আসেন তাদের বইয়ের পসরা নিয়ে। আর প্রায় সব প্রকাশনা সংস্থার অফিস পাওয়া যাবে ঢাকার বাংলাবাজারে।

বইয়ের দোকান, বই কিনতে নানা প্রয়োজনীয় তথ্য, প্রকাশনা সংস্থা, ই-বুক ডাউনলোড, অনলাইন অভিধান, বিশ্বকোষ ইত্যাদি বিভিন্ন ধরনের তথ্য পাওয়া যাবে এ বিভাগে।

বুকস ফর এশিয়া

নীলক্ষেত বই মার্কেট

বই কিনতে কোথায় যাবেন

প্রথমা প্রকাশন

বিস্তারিত

===============================================================

কোচিং সেন্টার

প্রাচীন গুরু শিষ্যের ধারা থেকে যখন শিক্ষকতকা প্রাতিষ্ঠানিক রূপ লাভ করলো, তখন থেকেই গৃহশিক্ষক এবং গৃহশিক্ষকতা নামক নতুন ধারাও সৃষ্টি হল। আজকের কোচিং সেন্টার সেই গৃহশিক্ষকতারই একটি পরিবর্তিত, বিস্তৃত ও প্রাতিষ্ঠানিক রূপ। যদিও আজকে আমাদের  শিক্ষা ব্যবস্থায় এর অবদান ও অবস্থান নিয়ে অনেক বিতর্ক রয়েছে। তবে এর শুরুটা ছিল সমালোচনাহীন। বস্তুতঃ শিক্ষক যখন মাতৃ-প্রতিষ্ঠান বিদ্যালয়কে গুরুত্ব না দিয়ে কোচিং সেন্টারকে গুরুত্ব দিতে শুরু করলেন। তখন থেকেই সমালোচনাহীন কোচিং সেন্টার সমালোচনার শিকার হতে শুরু করলো। তবে, কোচিং সেন্টারে শুধু বিদ্যালয়ের শিক্ষকগণই শিক্ষকতা করেন না। বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া শিক্ষার্থীরাও শিক্ষকতা করেন। কোচিং বিভিন্ন রকমের হতে পারে; একাডেমিক কোচিং, ভর্তি কোচিং, চাকরির পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতি কোচিং ইত্যাদি। ঢাকার বিভিন্ন ধরনের কোচিং সেন্টারে তথ্য থাকছে এ বিভাগে।

ব্রিটিশ কাউন্সিল টিচিং সেন্টার

মেডিকো

দি ক্যাডেট কোচিং

বিসিএস কনফিডেন্স

বিস্তারিত

===============================================================

পেশাগত প্রশিক্ষণ

সরকারী চাকুরীর ক্ষেত্রে পেশাগত দক্ষতা অর্জনের জন্য চাকুরীতে যোগদানের পরে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়। বেসরকারী চাকুরীতে যোগদানের ক্ষেত্রেও একইভাবে কর্মীদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়। এছাড়া প্রতিযোগিতামূলক চাকরির বাজারে মনের মত জায়গা করে নিতে পড়াশোনা পরবর্তী বিভিন্ন ধরনের প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন অনেকেই। বর্তমানে কম্পিউটার, হোটেল ম্যানেজমেন্ট, শেফ, মার্চেন্ডাইজিং, ফ্যাশন ডিজাইনিং, ফটোগ্রাফি, বিদেশী ভাষা, উপস্থাপনা, কেবিন ক্রু, এয়ার হোস্টেস, ক্যামেরাম্যান, নার্সিং এসব বিষয়ে দক্ষ জনশক্তির প্রচুর চাহিদা রয়েছে। এসব ক্ষেত্রে দক্ষ জনশক্তি গড়ে তোলার লক্ষ্যে সরকারী-বেসরকারী উদ্যোগে বেশ কিছু প্রতিষ্ঠান রয়েছে। এরকম প্রতিষ্ঠানের মধ্যে রয়েছে বাংলাদেশ পর্যটন কর্পোরেশনের ন্যাশনাল হোটেল এন্ড ট্যুরিজম, বিকেএমইএ প্রশিক্ষণ কেন্দ্র, বিজেএমই প্রশিক্ষণ কেন্দ্র, জাতীয় যুব প্রশিক্ষণ কেন্দ্র, ইব্রাহীম কার্ডিয়াক হসপিটাল এন্ড রিসার্চ ইনস্টিটিউট, কি সেজোং ইনস্টিটিউট, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাষা ইনস্টিটিউট, ইত্যাদি। ঢাকায় অবস্থিত এ ধরনের প্রতিষ্ঠানগুলোর তথ্য থাকছে এ অংশে।

সাইফুরস ইউনিভার্সিটি কলেজ

পারসোনা ইনষ্টিটিউট অব বিউটি এন্ড লাইফ

এয়ার হোস্টেস প্রশিক্ষণ

সিএটি / এসিসিএ

বিস্তারিত

===============================================================

দূতাবাস

এক দেশের সাথে অপর দেশের সাথে যোগাযোগ এবং যাতায়াতের জন্য অনুমতি দেয় দূতাবাস কর্তৃপক্ষ। বাংলাদেশে বিভিন্ন দেশের দূতাবাস রয়েছে। এসব দূতাবাস নিজ নিজ দেশের মুখপাত্র হিসেবে কাজ করে। ঢাকাস্থ যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, অস্ট্রেলিয়া, কানাডা, জাপান, ভারত, নেপাল, থাইল্যান্ড, ইন্দোনেশিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা, সৌদি আরব, দুবাই, ডেনমার্ক, শ্রীলংকা, পাকিস্তান, সুইডেন, ফিলিপাইন, নিউজিল্যান্ড, কুয়েত, কাতার, বাহরাইন, চীন, রাশিয়াসহ বিভিন্ন দেশের দূতাবাসের তথ্য থাকছে এ বিভাগে।

ভারত দূতাবাস

জাপান দূতাবাস

সৌদি আরব দূতাবাস

জার্মান দূতাবাস

বিস্তারিত

===============================================================


২৫ বছরে ১৮ সন্তানের জননী!
সর্বপ্রথম পোর্টেবল দ্বীপ
বিদেশিনীর বাংলা প্রেম
জুতার গাছ!
exam
নির্বাচিত প্রতিবেদন
exam
সুমাইয়া শিমু
পিয়া বিপাশা
প্রিয়াংকা অগ্নিলা ইকবাল
রোবেনা রেজা জুঁই
বাংলা ফন্ট না দেখা গেলে মোবাইলে দেখতে চাইলে
how-to-lose-your-belly-fat
guide-to-lose-weight
hair-loss-and-treatment
how-to-flatten-stomach
fat-burning-foods-and-workouts
 
সেলিব্রেটি